৪ উপায়ে স্কিন ব্যারিয়ার ঠিক রাখুন

স্কিন ব্যারিয়ার
স্কিন ব্যারিয়ার আসলে কি সেটা অনেকেই জানে না। সহজ কথায় বলতে গেলে, স্কিন ব্যারিয়ার হচ্ছে একটা ওয়াটারটাইট সিল যা ত্বকের বাহ্যিক লেয়ারগুলোকে সুসংগত রাখে। যখন এই বাহ্যিক লেয়ারগুলো স্বাস্থ্যকর থাকে, তখন ত্বক নরম, কোমল এবং হৃষ্টপুষ্ট দেখায়। কিন্তু যদি এই বাহ্যিক লেয়ারগুলো ড্যামেজ হয়ে যায়, তাহলে নিষ্প্রভ, রুক্ষ এবং শুষ্ক দেখায়।

স্কিন ব্যারিয়ার ড্যামেজ হলে ত্বকের কোষ অটুট রাখে এমনসব গুরুত্বপূর্ণ উপাদান: সিরামাইড, কোলেস্টরল, এবং লিনোলিক এসিডের মতো পুরু এসিড হারাতে থাকে বা ধরে রাখতে ব্যর্থ হয়। ফলে ত্বক হতে জল নিঃসরণ হয় দ্রুত এবং ত্বক সকল বাহ্যিক সমস্যার কাছে ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়ে।

তাই স্কিন ব্যারিয়ারেরও যত্নের দরকার আছে। আর আজকের আলোচনা সাজানো হয়েছে স্কিন ব্যারিয়ার ঠিক রাখার উপায়গুলো নিয়েই।
  1. স্কিন ব্যারিয়ার কি
  2. স্কিন ব্যারিয়ার ড্যামেজের লক্ষণ
  3. স্কিন ব্যারিয়ার ঠিক রাখার উপায়
  4. স্কিন ব্যারিয়ার ড্যামেজ হলে করণীয় কি?

স্কিন ব্যারিয়ার কি? 

স্কিন ব্যারিয়ার কি ? এটি হচ্ছে আপনার নিজস্ব ডিফেন্স জোন বা ডিফেন্স সিস্টেম। এটি চব্বিশ ঘন্টা আপনাকে দূষণ, ধুলাবালি, সূর্যের ক্ষতিকর রশ্মি, তেল চিটচিটে ভাব থেকে সুরক্ষিত রাখে। পরিষ্কার, সুন্দর এবং মসৃণ ত্বকের নিশ্চয়তা দেয় স্কিন ব্যারিয়ার। কিন্তু যদি এটি ড্যামেজ হতে শুরু করে তাহলে যেন সমস্যাদের জন্য দুয়ার খুলে দেয়। ত্বকের শুষ্কতা, লালচে ভাবসহ আরো অনেক ক্ষতি হয় ত্বকের। তাই স্কিন ব্যারিয়ারেরও যত্নের দরকার আছে।

স্কিন ব্যারিয়ার ড্যামেজের লক্ষণ 

ত্বক স্বাস্থ্যকর থাকলে তা মসৃণ ও কোমল দেখাবে। কিন্তু যদি স্কিন ব্যারিয়ার ড্যামেজ হয়ে যায় তাহলে ডিহাইড্রেটেড হবে ত্বক। ত্বক তৈলাক্ত হলেও ডিহাইড্রেটেড হলে বুঝে নিতে হবে ত্বক ড্যামেজ হবার পথে। আরো যেসব কারণে বুঝতে পারবেন যে এটা ড্যামেজ হচ্ছে কিনা –
  • লালচে ভাব।
  • রোসেসিয়া।
  • চামড়া উঠা।
  • ডিহাইড্রেশন।
  • রুক্ষতা।
  • সংবেদনশীলতা।
  • চুলকানি।
  • কোনো প্রোডাক্ট প্রয়োগ করলে জ্বালাপোড়া বা চুলকানি হওয়া।
  • বলিরেখা দৃশ্যমান হওয়া।
  • একজিমার মতো র‍্যাশ উঠা।
  • ব্রেকআউট বেড়ে যাওয়া।

স্কিন ব্যারিয়ার ঠিক রাখার উপায় 

১. হাইড্রেট

ময়শ্চারাইজার যেমন ত্বককে স্বাস্থ্যকর রাখে তেমনি স্কিন ব্যারিয়ারকেও সুরক্ষা দেয়। সিরামাইড, গ্লিসারিন এবং অন্যান্য লিপোফিলিক মাধ্যমগুলো সিমেন্টের মতো কাজ করে। সেগুলো আর্দ্রতা ফিরিয়ে আনতে ফাটল নিরাময়ে সহায়তা করে। নিত্যদিনের রুটিনে এই উপাদানগুলো দিয়ে ত্বক ময়শ্চারাইজ করা উচিত।

২. প্রোডাক্টের অত্যধিক ব্যবহার করা যাবে না 

অনেক প্রোডাক্টই কার্যকরী হলেও এতে থাকা শক্তিশালী এসিড এবং রুক্ষ উপাদান স্কিন ব্যারিয়ারকে বিচ্যুত করতে পারে এবং আপনার ত্বককে ড্যামেজ করে ফেলতে পারে। তাই প্রোডাক্ট ব্যবহারের পূর্বে সেটা সক্রিয় উপাদানগুলো কি সেই সম্পর্কে আগে ভাগে জেনে নিবেন অবশ্যই। মনে রাখবেন, আপনার ত্বকের চিকিৎসার জন্য নাজুকতার সাহায্য নিন। কোন ধরনের অতিরিক্ত ধোয়া, অতিরিক্ত ঘষামাজা এবং যাচ্ছেতাই প্রোডাক্ট ব্যবহার করা যাবে না। দরকারে সপ্তাহে একদিন এক্সফোলিয়েট করুন।

৩. সূর্য থেকে সুরক্ষিত থাকুন 

সানস্ক্রিন ব্যবহার করুন। নতুবা আপনার স্কিন ব্যারিয়ার ভেঙ্গে পড়ার প্রবল সম্ভাবনা থেকেই যায়। সান প্রটেকটর ফ্যাক্টর ৩০ বা তারও বেশি থাকা সানস্ক্রিন ব্যবহার করতে হবে নিত্যদিন; যাতে সূর্যের ক্ষতিকর অতি বেগুনি রশ্মি, কম্পিউটার এবং অন্যান্য ডিভাইস থেকে আসা এইচইভি বিকিরণ থেকে সুরক্ষিত থাকতে পারেন। নিয়মিত সানস্ক্রিন ব্যবহার না করলে ত্বকে সূর্যের অতি বেগুনি রশ্মি সংস্পর্শ ঘটে এবং ত্বকের কোষগুলো ক্ষতিগ্রস্ত হয়। যার ফলে বার্ধক্যজনিত দাগ এবং এমনকি স্কিন ক্যানসারও হতে পারে।

৪. পিএইচ ব্যালেন্স ঠিক রাখুন 

স্বাস্থ্যকর স্কিন ব্যারিয়ারের অন্যতম রহস্য হচ্ছে ত্বকের পিএইচ ব্যালেন্স ঠিক রাখা। ত্বক ৫.৫ মাত্রার হলে ব্যারিয়ারকে সুরক্ষা দিতে পারে, যা সামান্য এসিডীয়। এর একটু কম বা বেশি হলেই ত্বকের ইকোসিস্টেমে বিচ্যুতি ঘটে এবং  ক্ষতিগ্রস্ত হয়। ফলে ত্বকে জ্বালাপোড়া এবং চুলকানি শুরু হয়। ত্বকের যত্নের  প্রোডাক্ট ব্যবহারের ক্ষেত্রেও পিএইচ ব্যালেন্সড ঠিকঠাক আছে কিনা দেখে নিবেন অবশ্যই।

স্কিন ব্যারিয়ার ড্যামেজ হলে করণীয় কি? 

স্কিন ব্যারিয়ার ড্যামেজ হোক কিংবা না হোক, আপনার উচিত হবে ড্যামেজ রিপেয়ারিং উপাদানগুলোর প্রয়োগ ঘটানো। ফ্যাটি এসিড, কোলেস্টরল, সিরামাইড এবং হায়ালুরোনিক এসিড রিপেয়ারিংয়ের পাশাপাশি ত্বকে পুষ্টি যোগায়। ত্বকে এই উপাদানগুলো কখনোই খুব বেশি পরিমাণে মজুদ থাকে না, বিশেষত যদি ত্বক  ড্যামেজ হয়ে থাকে। তাই, এই উপাদানগুলো আপনার স্কিনকেয়ার রুটিনে অন্তর্ভূক্ত করাটা আপনার ত্বকের জন্যই উপকারিতা বয়ে আনবে।
লিংক: 
📞 ত্বকের সমস্যার জন্য প্রোডাক্ট সাজেশন পেতে কল করুনঃ 01790 270066 অথবা ইনবক্স করুন। 
🌐 ১০০% অরিজিনাল কোরিয়ান প্রোডাক্টঃ https://chardike.com
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি । সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত © chardike blog 2021
0 I like it
2 I don't like it

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *