স্কিন কেয়ারে যে ভুল গুলোর কারনে স্কিন উন্নতি হচ্ছে না

korean-10step-skin-care-mistakes-you-need-to-stop-making

কোরিয়ান ১০ স্টেপ রুটিনে যে ভুলটা তুমি করছো 

কোরিয়ান স্কিন কেয়ার রুটিনের সাথে আমরা সবাই পরিচিত। কোরিয়ান স্কিন কেয়ার রুটিন সম্পর্কে সবচেয়ে বড় ভুল ধারণাটা হচ্ছে যে আমরা মনে করি কোরিয়ান স্কিন কেয়ার মানেই বিভিন্ন প্রোডাক্ট একসাথে মুখে ব্যবহার করা। আপনি কোরিয়ান ১০ স্টেপ রুটিন ঠিকভাবে মেনে চলছেন, কিন্তু আপনার ত্বকে কোনো পরিবর্তন লক্ষ্য করছেন না। এরকম হলে বুঝে নিবেন যে আপনি কোরিয়ান ১০ স্টেপ রুটিন ফলো করতে কোথাও না কোথাও ভুল করছেন।

চলুন আজকে জেনে নেয়া যাক যে কোরিয়ান ১০ স্টেপ রুটিনে আপনি কি কি ভুল করছেন।

১. ভুল পদ্ধতিতে প্রোডাক্ট ব্যবহার

আপনি আপনার ত্বকের জন্য সঠিক প্রোডাক্ট বেছে নিলেন। কিন্তু আপনি ময়েশ্চারাইজার ঘষে ঘষে মুখে লাগান যার ফলে ত্বক লাল হয়ে আসে। এর ফলে আপনার ত্বকে ইরিটেশনও হয়। এতে সঠিক প্রোডাক্ট ব্যবহার করা সত্ত্বেও কিন্তু আপনার ত্বকের ক্ষতি হয়ে যায়। তাই স্কিন কেয়ারের যেকোনো প্রোডাক্ট ব্যবহার করার সময় তা আঙুলের ডগায় লাগিয়ে আলতো করে মুখে ম্যাসেজ করবেন। ভুলেও কোনো ধরণের ঘষা-মাঝা করবেন না, বিশেষ করে চোখের চারপাশে তো মোটেও না।

২. সঠিক ক্লিনজিং হচ্ছে না

আমরা অনেকেই ক্লিনজিংয়ের উপকারিতা ভুলে যাই। এখানে ক্লিনজিং বলতে ডাবল ক্লিনজিংয়ের কথা বোঝানো হয়েছে। সারাদিন বাইরে থাকার কারণে আপনার ত্বকে যে পরিমান ধুলোবালি জমে তা পরিষ্কার করতে ডাবল ক্লিনজিং খুবই গুরুত্বপূর্ণ। সঠিকভাবে ডাবল ক্লিনজিং না করলে ত্বকে ব্রণ, ব্ল্যাকহেডস, হোয়াইটহেডস ইত্যাদি দেখা দিতে পারে।

৩. ধারাবাহিক না হওয়া

আপনি সব কাজই নিয়ম মেনে, ধারাবাহিকভাবে করেন। কিন্তু স্কিন কেয়ারের সময় ধারাবাহিকতা বজায়ে রাখাটা মাঝে মাঝে হয়ে ওঠে না। তবে স্কিন কেয়ারে ধারাবাহিকতা বজায়ে রাখাটাও অত্যন্ত জরুরি। নাহলে ভালো ফল কখনোই পাবেন না।

৪. খুব বেশি, খুব তাড়াতাড়ি

আপনি যেদিন থেকেই কোরিয়ান স্কিন কেয়ার সম্পর্কে জেনেছেন সেদিন থেকেই উঠে পড়ে লেগেছেন কোরিয়ান ১০ স্টেপ রুটিন ফলো করতে। হুট্ করেই আপনি আপনার সম্পূর্ণ স্কিন কেয়ার রুটিন বদলে দিলেন। নতুন নতুন প্রোডাক্ট ব্যবহার করা শুরু করলেন আর তাও বেশি বেশি করে। এরকম না করে আপনার ধীরে ধীরে প্রোডাক্ট বাছাই করা উচিত। আপনার আগে দেখে নেয়া উচিত যে এই প্রোডাক্টগুলো আপনার ত্বকের সঙ্গে খাপ খাওয়াতে পারবে কিনা। এবং সময়ের সাথে সাথে তার ব্যবহার বাড়ানো উচিত। হঠাৎ করেই কোনো নতুন প্রোডাক্ট ব্যবহার করে নিজের ত্বকের ক্ষতি ডেকে আনবেন না।

৫. কোনটার আগে কোনটা

কোরিয়ান ১০ স্টেপ রুটিন হোক বা অন্য কোনো রুটিন, সবসময় হালকা প্রোডাক্ট আগে ব্যবহার করবেন ও তারপর ঘন প্রোডাক্ট ব্যবহার করবেন। যেমন- আগে টোনার, তারপর সিরাম ও তারপর ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করুন।

 

জানলেন তো আপনি কেন আপনার কোরিয়ান ১০ স্টেপ রুটিনের প্রত্যাশিত ফলাফল পাচ্ছেন না। উপরের ভুলগুলো এড়িয়ে চললে ভালো ফলাফল পাবেন আশা করছি।

3 I like it
1 I don't like it

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *